বিনোদনপ্রচ্ছদ

বান্দরবানে গাঁজার কলকি হতে নোবেল, প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ স্ত্রীর।

বাংলাদেশের নাগরিক মাইনুল আহসান নোবেল। তিনি নিজের পরিচিতি বাড়িয়েছেন ভারতীয় টেলিভিশন জি বাংলার ‘সারেগামাপা’ রিয়েলিটি শোয়ে অংশ নিয়ে। এতে তিনি সবার কাছে প্রশংসার পাত্র হয়ে গিয়েছিলেন। তবে তিনি প্রশংসার চেয়ে এখন সমালোচনার পাত্র হয়ে গেছেন বেশি। তিনি বান্দরবানে বেড়াতে গিয়ে তার আজব সব কাজের মাধ্যমে এলাকাবাসীর কাছে বিতর্কের স্থান দখল করেছে। জনগন তার বিরুদ্ধে ক্ষোভ প্রকাশ করেছে।

বুধবার (২৫ আগস্ট) তার ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে যে ছবিটি আপলোড করেন তাতে একজন নারীর সাথে তাকে দেখা যায়। স্থানটি ছিল নাফাকুম প্রপাতের সাথে। যেখানে তার কাজ স্পষ্ট না হলেও মনে করা হচ্ছে সে গাঁজার কলকি টানছিল।

তার স্ত্রী মেজাজ ঠিক না রাখতে পেরে প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছেন ছবিটির মাধ্যমে।

আরো জানা গেছে ২৫ আগস্ট (বুধবার) রাতে ঘুরার জন্য রাতে এক নারীকে সাথে নিয়ে বান্দরবান যান এবং আবাসিক হোটেলে উঠে নারীটিকে নিজের স্ত্রী বলে পরিচয় দেন। পরের দিন তিনি ঐ নারীকে নিয়ে ঘুরাঘারি করেন এবং নেশাদ্রব্য সেবন করে। তার পাশাপাশি তিনি স্থানীয়দের সাথে বাজে ব্যাবহার করলে তারা ক্ষেপে উঠেন।

গার্ডেন সিটি হোটেল থেকে জানা যায়, সন্ধ্যায় তিনি আবার হোটেলে ফিরে আসেন এবং মদ্যপ অবস্থায় চেঁচামেচি শুরু করে। তাকে হোটেল কর্তৃপক্ষ শান্ত করতে ব্যার্থ হয়। হোটেলের অন্যরা তাকে শান্ত করতে আসায় তাদেরকে তিনি লাঞ্চিত করেন। পরে এই অবস্থা সামাল দিতে না পেরে বাধ্য হয়ে রাত ৩ টায় পুলিশ কে জানান তারা। পুলিশও তাকে শান্ত করতে পারেনি। পরে নোবেল স্বেচ্ছায় ভোরে রুম ত্যাগ করেন।

মো. জাফর নোবেলের এই আচরণের পর বলেছেন , একজন সংগীতশিল্পী হয়েও তিনি খুব খারাপ আচরণ করেছেন। নারীটিকে তিনি স্ত্রী ও বোন বলে জানিয়ে অথিতি ও পুলিশের সাথেও খুব বাজে ব্যাবহার করেছেন। পরে বান্দরবান সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বলেন তার এই কাজ নিয়ে তদন্ত করে আইনের আয়ত্তাধীন করা হবে।

এখন আবার তার স্ত্রী তার বিরুদ্ধে ব্যাক্তিগত সময়ের ভিডিও দিয়ে তার স্ত্রীকে ব্ল্যাকমেইলের অভিযোগ করেছেন।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button